Beta

বাংলাদেশিকে ‘পিটিয়ে মারল’ বিএসএফ

২৮ জানুয়ারি ২০১৮, ১২:৪৭

লালমনিরহাটের পাটগ্রাম উপজেলা সীমান্তে মঞ্জুরুল ইসলাম (২০) নামের এক বাংলাদেশিকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ উঠেছে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী বর্ডার সিকিউরিটি ফোর্সের (বিএসএফ) বিরুদ্ধে।

আজ রোববার ভোরের দিকে উপজেলার বুড়িমারী সীমান্তে এ ঘটনা ঘটে।

নিহত মঞ্জুরুল উপজেলার নাটারবাড়ী গ্রামের আসাদুল ইসলামের ছেলে। স্বজনরা জানিয়েছেন, তিনি গরু আনতে ভারতীয় সীমান্তে গিয়েছিলেন।

বাংলাদেশের সীমান্তরক্ষী বাহিনী বর্ডার গার্ড বাংলাদেশের (বিজিবি) রংপুর ৬১ ব্যাটালিয়নের বুড়িমারী ক্যাম্প কমান্ডার ওবাইদুল হক সকালে এনটিভি অনলাইনকে জানান, এ ঘটনার প্রতিবাদসহ পতাকা বৈঠকের আহ্বান জানিয়ে বিএসএফকে চিঠি দেওয়া হয়েছে। তবে বিএসএফ এখনো এ ব্যাপারে সাড়া দেয়নি। 

স্থানীয়দের বরাত দিয়ে বিজিবি জানায়, ভারতীয় গরু ব্যবসায়ীদের দেওয়া গরু আনতে বুড়িমারী সীমান্তের ৮৩৬ নম্বর মেইন পিলারের কাছে যান মঞ্জুরুলসহ কয়েকজন বাংলাদেশি। গরু নিয়ে ফেরার পথে কোচবিহার বিএসএফ ব্যাটালিয়নের একটি টহল দল তাদের ধাওয়া করে।

এ সময় অন্যরা পালিয়ে দেশের অভ্যন্তরে আসতে পারলেও মঞ্জুরুলকে আটক করে বিএসএফ। পরে তাঁর ওপর শুরু হয় বিএসএফের নির্যাতন। একপর্যায়ে শারীরিক অবস্থার অবনতি হলে মঞ্জুরুলকে সীমান্তের বাংলাদেশ অংশে রেখে যায় বিএসএফ।

পরে সেখান থেকে কয়েকজন বাংলাদেশি গুরুতর আহত অবস্থায় মঞ্জুরুলকে উদ্ধার করে পাটগ্রাম উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসার পথে তাঁর মৃত্যু হয়।

পাটগ্রাম উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আবাসিক চিকিৎসা কর্মকর্তা (আরএমও) রফিকুল ইসলাম জানান, মঞ্জুরুলের শরীরের বিভিন্ন জায়গায় অসংখ্য আঘাত ও নির্যাতনের চিহ্ন রয়েছে।

ইউটিউবে এনটিভির জনপ্রিয় সব নাটক দেখুন। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি:

Advertisement