Beta

রাসিক নির্বাচন

বিএনপি প্রার্থীর পোস্টার লাগাতে বাধার অভিযোগ মিনুর

১১ জুলাই ২০১৮, ২৩:২৫

বিএনপিদলীয় মেয়র পদপ্রার্থী মোহাম্মদ মোসাদ্দেক হোসেন বুলবুল মঙ্গলবার দুপুরে দলীয় নেতৃবৃন্দকে নিয়ে নগরীর দরগাপাড়ায় হজরত শাহ মখদুম রুপোশ (রহ.)-এর মাজার জিয়ারতের মধ্য দিয়ে নির্বাচনী প্রচার শুরু করেন। ছবি : এনটিভি

রাজশাহী সিটি করপোরেশন (রাসিক) নির্বাচনে সরকারদলীয় নেতাকর্মীরা বিএনপির মেয়র প্রার্থীর পোস্টার, ব্যানার ও ফেস্টুন লাগাতে বাধা দিচ্ছে বলে অভিযোগ করেছেন বিএনপির চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা মিজানুর রহমান মিনু।

মিনু বলেন, কোথাও কোথাও বিএনপি প্রার্থীর ব্যানার কিংবা পোস্টার টানালে তারা ছিড়ে নষ্ট করে ফেলছে। এ ছাড়া তারা ভোটারদের এখন থেকেই ধানের শীষে ভোট দিতে নিষেধ করছে। এমনকি ভোট কেন্দ্রে না যাওয়ার জন্য ভোটারদের ভয় দেখাচ্ছে। ভোটকেন্দ্রে গেলেও নৌকায় ভোট দেওয়ার জন্য চাপ প্রয়োগ করা শুরু করেছে।

আজ বুধবার নগরীর ১ নম্বর ওয়ার্ডে দলীয় মেয়র প্রার্থী মোহাম্মদ মোসাদ্দেক হোসেন বুলবুলকে সঙ্গে নিয়ে নির্বাচনী প্রচারকালে গণমাধ্যমকে এই অভিযোগ করেন মিনু।

মিনু বলেন, রাজশাহী শান্তির শহর। মেয়র থাকাকালে শান্তির শহর হিসেবে তিনি পুরস্কার পেয়েছিলেন। কিন্তু সরকারদলীয় প্রার্থী ও তাদের দোসরদের জন্য রাজশাহীর পরিবেশ এরই মধ্যে গরম হতে শুরু করেছে।

বিএনপি জনপ্রিয় ও সুশৃঙ্খল একটি দল উল্লেখ করে মিনু বলেন, রাজশাহীতে দলের মধ্যে কোনো দ্বন্দ্ব-কোন্দল নেই। বিএনপি নেতারা এখন আগের থেকে অনেক একতাবদ্ধ ও সংগঠিত। সুষ্ঠু নির্বাচন তারা আশা করছে।

সুষ্ঠু নির্বাচন হলে বিএনপি প্রার্থী ৭০ হাজার ভোটের ব্যবধানে বিজয়ী হবে আশা করে মিনু বলেন, রাজশাহীতে কোনোভাবেই বিশৃঙ্খলা করতে দেওয়া হবে না। বিএনপি নেতাকর্মীরা জীবন দিয়ে হলেও সরকারের নীলনকশা ও প্রহসনের নির্বাচন রুখে দেবে।

মিনু বলেন, রাসিক নির্বাচনে বিজয়ের মধ্যে দিয়ে খালেদার জিয়ার মুক্তি এবং বর্তমান সরকারের পতন ঘটানো হবে। এ জন্য দলের নেতা-কর্মীরা সব ধরনের বাধা অতিক্রম করে সর্বশক্তি প্রয়োগ করে হলেও নিজেদের ভোটকেন্দ্র পাহারা দেবে। ভোটাররা যাতে নিশ্চিন্তে ভোটকেন্দ্রে গিয়ে নিজেদের ভোট প্রদান করতে পারে, বিএনপি নেতাকর্মীরা সে ব্যাপারেও প্রয়োজনীয় সহযোগিতা করবেন বলে জানান মিনু।

নির্বাচনী গণসংযোগে অংশ নেন মহানগর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক শফিকুল হক মিলন, রাজপাড়া থানা বিএনপির সভাপতি শওকত আলী, সাধারণ সম্পাদক আলী হোসেন, ১ নম্বর ওয়ার্ডের বিএনপির সভাপতি হাজী শহীদ আলম, সাধারণ সম্পাদক শামীম আহম্মেদ, পবা উপজেলা বিএনপির নেতা রিয়াজুল ইসলাম, মহানগর যুবদলের সাবেক সভাপতি ওয়ালিউল হক রানা, মহানগর যুবদলের সাধারণ সম্পাদক মাহফুজুর রহমান রিটন, জেলা যুবদলের সাধারণ সম্পাদক শফিকুল আলম সমাপ্ত, মহানগর যুবদলের সাধারণ সম্পাদক মাহফুজুল হাসনাইন হিকোল, মহানগর যুবদলের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক রুহুল আমিন বাবলু, মহানগর ছাত্রদলের সাধারণ সম্পাদক রফিকুল ইসলাম রবি, রাজপাড়া থানা ছাত্রদল নেতা আপেল ও ১ নম্বর ওয়ার্ড মহিলাদলের সভাপতি মনোয়ারা বেগম।

ইউটিউবে এনটিভির জনপ্রিয় সব নাটক দেখুন। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি:

Advertisement