Beta

পুকুরপাড়-নদীর তীর থেকে দুই নবজাতকের লাশ উদ্ধার

২৮ মে ২০১৯, ১৬:০২

মেহেরপুরের গাংনী উপজেলার ধানখোলা গ্রামে পুকুরপাড়ে নবজাতকের লাশ দেখতে লোকজনের ভিড়। ছবি : এনটিভি

ঝালকাঠি ও মেহেরপুরে দুই নবজাতকের লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। তাদের ধারণা, অবৈধভাবে কেউ গর্ভপাত ঘটিয়ে দুই নবজাতককে ফেলে রেখে গেছে।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, আজ মঙ্গলবার দুপুরে ঝালকাঠি শহরের লিচুতলা এলাকায় সুগন্ধা নদীর তীরে স্থানীয় লোকজন একটি ব্যাগের ভেতর নবজাতকের লাশ দেখতে পেয়ে পুলিশে খবর দেয়। পুলিশ গিয়ে লাশ উদ্ধার করে। গতকাল রাতে অবৈধ গর্ভপাত ঘটিয়ে কেউ নবজাতকের লাশ নদীর তীরে ফেলে যায় বলে ধারণা করছে পুলিশ। বিষয়টি তদন্ত করে দেখা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন ঝালকাঠি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শোনিত কুমার গায়েন।

এর আগের দিন সোমবার সকালে মেহেরপুর গাংনী উপজেলার ধানখোলা গ্রামের একটি পুকুরপাড় থেকে অজ্ঞাত এক নবজাতকের লাশ উদ্ধার করে পুলিশ।

ঝালকাঠি জেলা শহরের লিচুতলা এলাকায় সুগন্ধা নদীর তীর থেকে মঙ্গলবার দুপুরে এক নবজাতকের লাশ উদ্ধার করা হয়। ছবি : এনটিভি

গাংনী থানার ওসি হরেন্দ্রনাথ সরকার জানান, সকালে পুকুরপাড়ে একটি নবজাতকের লাশ দেখে এলাকাবাসী পুলিশে খবর দেয়। পরে ঘটনাস্থলে যায় গাংনীর থানা পুলিশের একটি দল। সেখান থেকে নবজাতকের লাশটি উদ্ধার করে।

ওসি জানান, নবজাতকটি জন্মের পর তার পরিবার একটি কাপড়ে জড়িয়ে পুকুরপাড় ফেলে রেখে যায়। নবজাতকটিকে কারা রেখে গেছে তাদের চিহ্নিত করার চেষ্টা চলছে। তা ছাড়া তাকে হত্যা করেই ফেলে রাখা হয়েছে কি না, তা খতিয়ে দেখছে পুলিশ।

এদিকে নবজাতকের লাশ উদ্ধার হওয়ার পর থেকে এলাকায় নিন্দার ঝড় উঠেছে।

Advertisement