Beta

পটুয়াখালীতে ‘বন্দুকযুদ্ধে ৩০ মামলার আসামি’ নিহত

১০ আগস্ট ২০১৯, ০৭:৩৭ | আপডেট: ১০ আগস্ট ২০১৯, ১৩:৪৩

কাজল বরণ দাস, পটুয়াখালী

পটুয়াখালী সদর উপজেলায় কথিত বন্দুকযুদ্ধে এক ব্যক্তি নিহত হয়েছেন বলে দাবি করেছে পুলিশ। আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর দাবি, নিহত ব্যক্তি ৩০ মামলার আসামি।

গতকাল শুক্রবার গভীর রাতে উপজেলার বল্লভপুরে এই কথিত বন্দুকযুদ্ধের ঘটনা ঘটে বলে গণমাধ্যমকে জানিয়েছেন সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোস্তাফিজুর রহমান।

আজ শনিবার সকালে ওসি আরো জানান, নিহত ব্যক্তির নাম চাঁন মিয়া (৩৫)। তিনি সদর উপজেলার বাসিন্দা। তাঁর বিরুদ্ধে বিভিন্ন অপরাধে থানায় ৩০টি মামলা রয়েছে।

ওসি মোস্তাফিজুর দাবি করেন, ঈদুল আজহা সামনে রেখে ডাকাত সর্দার চাঁন মিয়া তাঁর দলবল নিয়ে কালিকাপুর ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) বল্লভপুর এলাকায় ডাকাতির প্রস্তুতি নিচ্ছিলেন। খবর পেয়ে গতকাল রাতে পটুয়াখালী-আমতলী মহাসড়কে পুলিশ অভিযান চালায়।

‘এ সময় ডাকাতদের ঘেরাও করতেই পুলিশের ওপর হামলে পড়ে ডাকাত দলের সদস্যরা। পুলিশ আত্মরক্ষার্থে গুলি ছুড়লে ঘটনাস্থলেই নিহত হন ডাকাত সর্দার চাঁন মিয়া। এ সময় অন্য ডাকাত সদস্যরা পাশের বরগুনা জেলার সীমানায় পালিয়ে যায়।’

এ সময় ঘটনাস্থল থেকে একটি পাইপগান, বন্দুকের গুলির খোসা ও দেশি অস্ত্র উদ্ধার হয় বলে দাবি করেন ওসি মোস্তাফিজুর।

ওসির ভাষ্যমতে, চাঁন মিয়ার বিরুদ্ধে পটুয়াখালী সদর থানায় ডাকাতি ও খুনসহ ছয়টি এবং বরগুনা জেলার বিভিন্ন থানায় মোট ৩০টি মামলা রয়েছে। এর মধ্যে বরগুনা সদর থানায় ডাকাতির একটি মামলায় ১০ বছরের সাজাপ্রাপ্ত আসামি ছিলেন চাঁন মিয়া।

চাঁন মিয়ার লাশ পটুয়াখালী জেনারেল হাসপাতাল মর্গে রাখা হয়েছে বলে জানান এই পুলিশ কর্মকর্তা।

Advertisement