Beta

কলেজছাত্রীসহ অপহৃত তিনজনকে গাজীপুর থেকে উদ্ধার

০৮ অক্টোবর ২০১৯, ২১:০২

গাজীপুর থেকে উদ্ধার হওয়া সিরাগঞ্জ থেকে অপহৃত দুই কিশোর। ছবি : এনটিভি

মুক্তিপণের দাবিতে সিরাজগঞ্জ ও ফরিদপুর থেকে পৃথকভাবে অপহৃত এক কলেজছাত্রীসহ তিনজনকে গাজীপুর থেকে উদ্ধার করেছে র‌্যাব-১। আজ মঙ্গলবার বিকেলে র‌্যাব-১ এর স্পেশালাইজ কোম্পানি পোড়াবাড়ী ক্যাম্পের কোম্পানি কমান্ডার লেফটেন্যান্ট কমান্ডার আব্দুল্লাহ আল-মামুন এ তথ্য জানিয়েছেন।

র‍্যাব জানায়, গত ২৯ সেপ্টেম্বর বিকেলে চার থেকে পাঁচজন যুবক ফরিদপুর থেকে স্থানীয় এক কলেজের একাদশ শ্রেণি ছাত্রীকে (১৯) মাইক্রোবাসে অপহরণ করে নিয়ে যায়। স্বজনরা বিভিন্ন স্থানে খোঁজাখুঁজি করে তাঁর সন্ধান না পেয়ে পরদিন আলফাডাঙ্গা থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করে। একদিন পর অপহরণকারীরা মোবাইল ফোনে স্বজনদের কাছে পাঁচ লাখ টাকা মুক্তিপণ দাবি করে। টাকা দেওয়া না হলে ওই ছাত্রীকে হত্যা করার হুমকি দেয়। সেই সঙ্গে কাউকে কিছু না জানানোর জন্য ভয়ভীতিও দেখান তারা।

এর একপর্যায়ে ভিকটিমের পরিবার জানতে পারে মেয়েটিকে গাজীপুর নিয়ে আসার পর নির্যাতন করা হচ্ছে। এ ঘটনায় অপহৃত ওই ছাত্রীকে উদ্ধারের সহযোগিতা চেয়ে তাঁর স্বজনরা গাজীপুরের পোড়াবাড়ীস্থ র‌্যাব-১-এর ক্যাম্পে অভিযোগ করেন। বিষয়টি জেনে র‌্যাব সদস্যরা অভিযান শুরু করেন।

অপহরণের আট দিন পর সোমবার মুক্তিপণের টাকা নেওয়ার আশায় কলেজছাত্রীকে নিয়ে অপহরণকারীরা গাজীপুরের কালিয়াকৈর উপজেলার সফিপুর বাজার এলাকায় অবস্থান করছে- এ গোপন সংবাদ পেয়ে লেফটেন্যান্ট কমান্ডার আব্দুল্লাহ আল-মামুনের নেতৃত্বে র‌্যাব সদস্যরা সেখানে অভিযান চালায়। র‌্যাবের উপস্থিতি টের পেয়ে কলেজছাত্রীকে ফেলে রেখে অপহরণকারীরা চন্দ্রার দিকে পালিয়ে যায়। এরপর সেখান থেকে মেয়েটিকে উদ্ধার করে র‌্যাব-১ এর সদস্যরা। এ ব্যাপারে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে বলে জানান র‍্যাব কর্মকর্তা আব্দুল্লাহ আল-মামুন।

এদিকে অপর ঘটনায় গত ১ আগস্ট দুপুরে সিরাজগঞ্জ জেলার তাড়াশ উপজেলার দেবীপুর গ্রামের আবদুর রশিদ মিয়ার ছেলে মো. জিহাদ হাসান (১৫) ও একই এলাকার মো. ইউসুফ আলীর ছেলে মো. সুমনকে (১৫) নিজ এলাকা থেকে মুক্তিপণের দাবিতে অপহরণ করে। স্বজনরা বিভিন্নস্থানে খোঁজাখুঁজি করে তাঁদের সন্ধান না পেয়ে ১৯ সেপ্টেম্বর তাড়াশ থানায় একটি মামলা করে। আজ সোমবার বিকেলে মুক্তিপণের টাকা নেওয়ার আশায় অপহৃত ওই দুই কিশোরকে নিয়ে অপহরণকারীরা গাজীপুর সদর থানাধীন রাজবাড়ী এলাকার একটি বাড়িতে অবস্থান করছে। এমন গোপন সংবাদের ভিত্তিতে র‍্যাব কর্মকর্তা আব্দুল্লাহ আল-মামুনের নেতৃত্বে র‌্যাব সদস্যরা সেখানে অভিযান চালিয়ে অপহৃতদের উদ্ধার করে। এ সময় র‍্যাবের উপস্থিতি টের পেয়ে অপহরণকারীরা পালিয়ে যেতে সক্ষম হয়। এ ব্যাপারে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে বলে জানান র‍্যাব কর্মকর্তা আব্দুল্লাহ আল-মামুন।

Advertisement