Beta

‘বাবা গম্ভীর, চাচ্চু হাসিখুশি’

১০ অক্টোবর ২০১৮, ১৬:৩৭

অনলাইন ডেস্ক
বলিউড অভিনেতা অনিল কাপুর, সোনম কাপুর ও সঞ্জয় কাপুর। ছবি : ডিএনএ

বলিউড অভিনেত্রী সোনম কাপুরের ১১ বছরের দীর্ঘ অভিনয়জীবনে প্রথমবারের মতো তাঁর বাবার সঙ্গে একই ছবিতে কাজ করছেন। সোনমের বাবা বর্ষীয়ান অভিনেতা অনিল কাপুর। শেলি চোপড়া ধর পরিচালিত ‘এক ল্যাড়কি কো দেখা তো অ্যায়সা লাগা’ ছবিতে বাবা-মেয়ে কাজ করছেন।

অন্যদিকে অভিষেক শর্মার ‘দ্য জয়া ফ্যাক্টর’ ছবিতে সোনম কাপুর চাচা সঞ্জয় কাপুরের মেয়ের ভূমিকায় অভিনয় করবেন। বাবা ও চাচা দুজনের সঙ্গেই রুপালি পর্দায় দেখা যাবে সোনমকে। আর এতে খুব খুশি এ অভিনেত্রী।

সোনম বলেছেন, “তুমি যদি ‘এক ল্যাড়কি কো দেখা তো অ্যায়সা লাগা’ ছবিটি দেখো, বুঝবে এটি বাবা ও আমার সেরা ছবির একটি হবে। প্রথমবারের মতো আমরা একসঙ্গে কাজ করেছি।”

অনিল কাপুর ও মনীষা কৈরালা অভিনীত ‘১৯৪২ : এ লাভ স্টোরি’ ছবিটি মুক্তি পেয়েছিল ১৯৯৪ সালে। নব্বই দশকে জননন্দিত গানগুলোর একটি ছিল ‘এক ল্যাকড়ি কো দেখা তো অ্যায়সা লাগা’। রাহুল দেববর্মণের সুরে এ গানটি গেয়েছিলেন কুমার সানু। সোনমের নতুন এ ছবির নামও এ গানের শিরোনাম থেকে নেওয়া।

যাহোক, শুটিং সেটে বাবা অনিল ও চাচা সঞ্জয়ের মধ্যে কী পার্থক্য লক্ষ করেন সোনম? এ অভিনেত্রীর উত্তর, ‘কাজের সময় বাবা একদম গম্ভীর থাকে আর চাচ্চু থাকে বেশি হাসিখুশি।’ আর সোনমের প্রতিক্রিয়া সঞ্জয় কাপুরকে জানানো হলে তিনি বলেন, ‘সে (সোনম) আমার পাশে খুবই স্বাচ্ছন্দ্যে থাকে।’

সঞ্জয় কাপুর বলেন, “জয়া ফ্যাক্টরের শুটিং সেটে খুব মজা হয়। তাই সোনম একদম রিলাক্স মুডে থাকে। তা ছাড়া তাঁর চরিত্রও বাস্তব জীবনের মতো। এই প্রথম পরিবারের কারো সঙ্গে শুটিং করছি। ২০১৭ সালে ‘মুবারকন’ ছবিতে অর্জুন কাপুরের বাবার দৃশ্যে ছিলাম, একদম ছোট রোল ছিল।”

‘সোনম আর আমি এত সুন্দর সময় কাটানোর সুযোগ হাতছাড়া করতে চাইনি। কাজের সুবাদে প্রতিদিন দেখা হচ্ছে, অনেক বিষয়ে আলাপ হচ্ছে, একে-অপরকে জানছি।’

সঞ্জয় কাপুরের সঙ্গে যে ‘বীরে দ্য ওয়েডিং’ নায়িকারই ভালো সম্পর্ক তা নয়, তাঁর স্বামী আনন্দ এস আহুজার সঙ্গেও বেশ ভালো সম্পর্ক রয়েছে। তিনি বলেন, ‘কয়েক দিন আগে আনন্দ শুটিং সেটে আমাকে নামিয়ে দিয়ে গেল। সোনম ও আনন্দ অসাধারণ দম্পতি। সে সোনমের প্রতি দায়িত্বশীল।’

ইউটিউবে এনটিভির জনপ্রিয় সব নাটক দেখুন। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি:

Advertisement