Beta

কে হচ্ছেন মাসুদ রানা? জানালেন জাজের সিইও

০৪ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ২০:১৯

জাজ মাল্টিমিডিয়ার সিইও আলিমুল্লাহ খোকন।

কাকেই বুঁদ করে রাখেননি কাজী আনোয়ার হোসেনের জনপ্রিয় গোয়েন্দা মাসুদ রানা? বাংলাদেশ কাউন্টার ইন্টেলিজেন্সের দুর্দান্ত, দুঃসাহসী এ গুপ্তচর গোপন মিশন নিয়ে ঘুরে বেড়াতেন দেশ-দেশান্তরে। কোমলে-কঠোরে মেশানো দুর্ধর্ষ এ স্পাই হিসেবে রুপালি পর্দায় কে আসছেন- তা নিয়ে শুরু হয়েছে অন্তর্জাল-দুনিয়ায় বিতর্ক।

ধ্বংস পাহাড়, ভারতনাট্যম ও স্বর্ণমৃগ- সেবা প্রকাশনীর তুমুল জনপ্রিয় এ তিনটি উপন্যাস নিয়ে সিনেমা নির্মাণের ঘোষণা দিয়েছে জাজ মাল্টিমিডিয়া। অন্যদিকে বেসরকারি টেলিভিশন চ্যানেল আইয়ে মাসুদ রানার খোঁজে শুরু হয়েছে রিয়্যালিটি শো ‘কে হবে মাসুদ রানা?’এই শোর বেশ কিছু ক্লিপ ভাইরাল হয়েছে স্যোশাল মিডিয়ায়। এখন শোনা যাচ্ছে, এই রিয়্যালিটি শো থেকে মাসুদ রানা নেওয়া হতেও পারে, আবার নাও হতে পারে। তাই এ গুঞ্জন এড়াতে এনটিভি অনলাইন মুখোমুখি হয়েছিল জাজ মাল্টিমিডিয়ার প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) আলিমুল্লাহ খোকনের। প্রশ্নোত্তর আকারে কথোপকথনটি তুলে ধরা হলো :

এনটিভি অনলাইন : কে হচ্ছেন মাসুদ রানা?

আলিমুল্লাহ খোকন : আসলে মাসুদ রানা কে হবেন, তা এখনো চূড়ান্ত হয়নি। গত ২৪ আগস্ট আমরা জাজ মাল্টিমিডিয়ার কার্যালয়ে অডিশনের আয়োজন করেছিলাম। সেখানে ‘ঢাকা অ্যাটাক’ সিনেমার অভিনেতা এবিএম সুমন, ‘বেপরোয়া’র নায়ক রোশান ও চ্যানেল আই পরিচালিত ‘কে হবে মাসুদ রানা’র তিনজন প্রতিযোগী অংশ নেন। এদের মধ্য থেকে যে কেউ মাসুদ রানা হতে পারেন।

 

এনটিভি অনলাইন : জাজের সেই অডিশনে বিচারক ছিলেন কারা?

আলিমুল্লাহ খোকন : ছবিটি যেহেতু হলিউড থেকে নির্মিত হচ্ছে, তাই অডিশন তো হলিউডের ব্যক্তিদেরই নিতে হবে। গত মাসে হলিউড থেকে এই সিনেমা নির্মাণের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট একটি টিম ঢাকায় এসেছিল। অডিশন নিয়েছেন সিনেমাটির পরিচালক বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত আসিফ আকবর, হলিউডের অ্যাকশন ডিরেক্টর ফিলিপ টানসহ বেশ কয়েকজন।

‘মাসুদ রানা’ ছবির পরিচালক আসিফ আকবর, হলিউডের অ্যাকশন ডিরেক্টর ফিলিপ টান, এবিএম সুমনসহ জাজ মাল্টিমিডিয়ায় মাসুদ রানা টিম।

এনটিভি অনলাইন : বিশ্বখ্যাত ইন্টারনেট মুভি ডাটাবেজ (আইএমডিবি) তাদের ওয়েব সাইটে মাসুদ রানা চরিত্রে এবিএম সুমনের নাম প্রকাশ করেছে। তাঁকে কি মাসুদ রানা চরিত্রের জন্য চূড়ান্ত করা হয়েছে?

আলিমুল্লাহ খোকন : এবিএম সুমন অনেক ভালো অভিনেতা। তিনি এই চরিত্রে চূড়ান্ত হওয়ার দৌঁড়ে অনেকটাই এগিয়ে রয়েছেন। তবে তাকে ফাইনাল করা হয়েছে কি না, সেটা আমি এখনই বলতে পারছি না। হলিউডের এ সিনেমার সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিরা আমাকে অফিশিয়ালি এখনো এমন কিছু জানাননি। তবে তারা বাংলাদেশ ছাড়ার আগে সুমনের অনেক প্রশংসা করেছেন।

 

এনটিভি অনলাইন : মাসুদ রানার চরিত্রটি চূড়ান্ত করবে হলিউড টিম। কিন্তু ঘটা করে রিয়েলিটি শোর মাধ্যমে মাসুদ রানা খোঁজা হচ্ছে কেন?

আলিমউল্লাহ খোকন : মাসুদ রানা হওয়ার যোগ্যতা রাখেন, এমন যে কেউ মাসুদ রানা হতে পারেন। ছবিটি প্রযোজনা করছে জাজ মাল্টিমিডিয়া, আর হলিউড থেকে ছবিটি নির্মাণ করা হচ্ছে। কেউ প্রতিযোগিতার আয়োজন করলেই সেখান থেকে আমরা মাসুদ রানাকে নিয়ে নেব, বিষয়টি এমন নয়। এখনো চাইলে যেকোনো চ্যানেল এমন রিয়েলিটি শো করতে পারে, আমাদের কাছে মাসুদ রানা চরিত্রের জন্য সুপারিশ করতে পারে। কিন্তু এর বেশি কিছু নয়।

 

এনটিভি অনলাইন : আপনাকে ধন্যবাদ।

আলিমউল্লাহ খোকন : এনটিভি অনলাইনকেও ধন্যবাদ।

আইএমডিবি তাদের ওয়েবসাইটে প্রকাশ করেছে ‘এমআর ৯’-এর কলাকুশলীদের নাম।

আইএমডিবির ওয়েবসাইটসূত্রে জানা জানা গেছে, হলিউড থেকে নির্মিত এ সিনেমাটির নাম দেওয়া হয়েছে ‘এমআর-৯’। সিনেমার সাতজন চরিত্রের নামও তারা প্রকাশ করেছে। সেখানে দেখা যায়, মাসুদ রানা হিসেবে আছেন এবিএম সুমন, সুলতা রায় চরিত্রে আছেন আশিকি-২খ্যাত বলিউড অভিনেত্রী শ্রদ্ধা কাপুর, ভিক্টর ভেগা চরিত্রে আছেন মার্কিন অভিনেতা মিকি রোর্ক, ইয়াকুব চরিত্রে আছেন দ্য গ্রেট খালি নামে পরিচিত কুস্তিগীর দালিপ সিং, ভিনসেন্ট গগল চরিত্রে আছেন দ্য ম্যাট্রিক্স রিলোডেড খ্যাত তারকা ড্যানিয়েল বার্নহার্ড, জ্যাসন ভেগা চরিত্রে আছেন হলিউড অভিনেতা ওয়েস্টন কেইজ কপোলা এবং অন্য আরেকটি চরিত্রে গাব্রিয়েলা রাইট।

জাজ সূত্রে জানা গেছে, সিনেমাটির শুটিং হবে মরিশাস, থাইল্যান্ড ও বাংলাদেশে। ছবিটি ইংরেজি ও বাংলা ভাষায় মুক্তি পাবে। পরে অন্য ভাষায় ডাবিং বা সাবটাইটেল হবে। এটি বিশ্বব্যাপী মুক্তি দেওয়ার কথা রয়েছে ২০২০ সালে।

Advertisement