Beta

না চাইলেও বিশ্বকাপের আবহে থাকতেই হচ্ছে কোহলিদের!

১২ জুলাই ২০১৯, ১৫:২৫ | আপডেট: ১২ জুলাই ২০১৯, ১৫:৪১

স্পোর্টস ডেস্ক

দ্বাদশ বিশ্বকাপের ফাইনালে খেলবে ভারত—এটা ধরেই নিয়েছিল ভারতীয় ক্রিকেট দলের সমর্থকরা। কেবল সমর্থক নয়, ভারতীয় বিজ্ঞাপন নির্মাতারাও এক দশকের মধ্যে ‘আরো একবার’ বিশ্বকাপ জয়ের ব্যাপারে প্রায় নিশ্চিতই ছিলেন। সে ভাবনা থেকে নির্মিত হয়েছে নানান বিজ্ঞাপনও।

বিশ্বের এক নম্বর ওয়ানডে দল হিসেবে বিশ্বকাপ খেলতে গিয়েছিল ভারত। শুরু থেকেই ভালো পারফরম্যান্স করা ভারত একে একে জয় পায় দক্ষিণ আফ্রিকা, অস্ট্রেলিয়া ও পাকিস্তানের বিপক্ষে। মাঝে একবার থমকে যায় স্বাগতিক ইংল্যান্ডের বিপক্ষে। তবে তাতে অবশ্য ভারতের সেমিফাইনাল খেলা আটকায়নি। কিন্তু সেমিফাইনালে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে মুখ থুবড়ে পড়ে বিরাট কোহলির ভারত। ভারতীয় সমর্থকরা মহেন্দ্র সিং ধোনি, রোহিত শর্মা ও কোহলিদের এমন বিদায় মানতে পারেননি।

বিশ্বকাপের ফাইনাল খেলার ব্যাপারে নিশ্চিত ছিল বোধ হয় টিম ইন্ডিয়ার ম্যানেজমেন্টও। তাই ধোনি, কোহলিদের দেশে ফেরার ফ্লাইটের টিকেট কাটা হয়েছিল বিশ্বকাপ ফাইনাল, অর্থাৎ ১৪ জুলাইয়ের পর। কিন্তু বিশ্বকাপ ফাইনালে তো ওঠা হলো না ভারতের। ফাইনালে ১৪ জুলাই লর্ডসের মাঠে খেলবে নিউজিল্যান্ড ও স্বাগতিক ইংল্যান্ড। এবার তাই নতুন চ্যাম্পিয়ন পাচ্ছে ক্রিকেটবিশ্ব।

সে ফাইনাল ভারতীয় ক্রিকেটাররা কেউ দেখবেন কি না, সে বিষয়ে নিশ্চিত না হওয়া গেলেই বিশ্বকাপ ফাইনালের আগে পর্যন্ত যে ভারতীয় ক্রিকেট দলকে ইংল্যান্ডে থাকতে হচ্ছে, তা কিন্তু নিশ্চিত। কারণ, ১৪ জুলাইয়ের আগে দলের জন্য ফ্লাইটের টিকেট জোগাড় করতে পারেনি ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড (বিসিসিআই)।

সেমিফাইনালে নিউজিল্যান্ডের কাছে হারের পর মনটা খারাপ থাকার কথা ভারতীয় ক্রিকেটারদের। মন ভালো করতে বিশ্বকাপের আবহ থেকে বেরিয়ে আসতে চাইবেন তাঁরা, সেটাই স্বাভাবিক। কিন্তু তা আর হচ্ছে কই! ইচ্ছা থাকুক বা না থাকুক, ১৪ জুলাই পর্যন্ত ইংল্যান্ডেই থাকতে হবে টিম ইন্ডিয়াকে।

বিসিসিআইর এক শীর্ষ কর্মকর্তার বরাত দিয়ে বার্তা সংস্থা আইএএনএস জানিয়েছে, ভারতীয় ক্রিকেটাররা ১৪ জুলাই পর্যন্ত ম্যানচেস্টারেই থাকছেন।

বিসিসিআইর ওই কর্মকর্তা বলেন, ‘সেমিফাইনাল শেষ হওয়ার পর থেকেই টিকেট বুকিংয়ের জন্য চেষ্টা করা হয়েছে। কিন্তু ১৪ জুলাই ম্যানচেস্টার ছাড়ার কোনো এয়ার টিকেট পাওয়া যায়নি।’

Advertisement