Beta

১৮ বিচ্ছিন্নতাবাদী নেতার ওপর থেকে নিরাপত্তা তুলে নিল ভারত

২১ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ০৯:২৬ | আপডেট: ২১ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ১১:৪৯

কলকাতা সংবাদদাতা
হুরিয়ত নেতা মিরওয়াইজ ওমর ফারুক। ফাইল ছবি : পিটিআই

ভারতের জম্মু-কাশ্মীরের পুলওয়ামায় জঙ্গি হামলার জেরে এবার কাশ্মীরি বিচ্ছিন্নতাবাদীদের বিরুদ্ধে আরো বড় পদক্ষেপ নিল ভারতের কেন্দ্রীয় সরকার। নতুন করে ১৮ জন বিচ্ছিন্নতাবাদী নেতার ওপর থেকে নিরাপত্তা তুলে নিয়েছে তারা। বুধবার ভারতের কেন্দ্রীয় সরকারের পক্ষ থেকে এই পদক্ষেপের কথা জানানো হয়।

ভারতের কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্রের তরফে জানানো হয়, ভারত সরকার মনে করছে বিচ্ছিন্নতাবাদীদের নিরাপত্তা দিয়ে অর্থ নষ্ট হচ্ছে কেন্দ্রের। এই অর্থ আরো ভালোভাবে ব্যবহার করা সম্ভব। এবারে নতুন করে জম্মু-কাশ্মীরের যেসব বিচ্ছিন্নতাবাদী নেতার ওপর থেকে নিরাপত্তা তুলে নেওয়া হলো তাঁদের মধ্যে অন্যতম হলেন এসএএস গিলানি, ইয়াসিন মালিক, আব্দুল গনি শাহ, নঈম আহমেদ খান, জাফর আকবর ভাট প্রমুখ।

এর আগে গত রোববার ভারতের জম্মু-কাশ্মীরের পাঁচ হুরিয়ত নেতার নিরাপত্তা তুলে নেওয়া হয়েছিল। সেই পাঁচ হুরিয়ত নেতার মধ্যে ছিলেন মিরওয়াইজ ওমর ফারুক, আব্দুল গনি ভাট, ওমর ফারুক, বিলাল লোন, হাসিম কুরেশি ও সাবির শাহ। সেই সময়েই সরকারি নির্দেশিকায় বলা হয়, কোনো কারণ বা অজুহাতেই ওই সব নেতাকে কোনো অবস্থাতেই নিরাপত্তা বা সরকারি গাড়ি দেওয়া যাবে না। শুধু গাড়ি বা নিরাপত্তাতেই শেষ নয়। এ ছাড়া যদি কোনোরকম সরকারি সুবিধা এরা ভোগ করে থাকেন সেটাও প্রত্যাহার করার হুকুম জারি করা হয় ওই নির্দেশিকায়।

গত রোববারের পর বুধবার জম্মু-কাশ্মীরের ১৮ জন বিচ্ছিন্নতাবাদী  নেতা ছাড়াও আরো ১৫৫ জন রাজনৈতিক কর্মীর সুরক্ষা তুলে নেওয়া হয়েছে। এর ফলে অন্তত এক হাজার পুলিশকর্মী ও ১০০টি গাড়ি নিরাপত্তা দেওয়ার কাজ থেকে মুক্ত হবে।

Advertisement