Beta

যুক্তরাষ্ট্রে বন্দুকহামলা থেকে বেঁচে আসার এক বছর পর স্কুলছাত্রীর আত্মহত্যা

২৩ মার্চ ২০১৯, ২৩:১০

অনলাইন ডেস্ক
লেখালেখি ও যোগ ব্যয়াম করতে পছন্দ করা সিডনি আয়েলো গত সপ্তাহে আত্মহত্যার পথ বেছে নেন। ছবি : সংগৃহীত

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ফ্লোরিডার পার্কল্যান্ডে স্কুলে বন্দুকধারীর গুলিবর্ষণের ঘটনায় বেঁচে যাওয়া এক ছাত্রী এক বছরের মধ্যে নিজের মাথায় গুলি করে আত্মহত্যা করেছে। সেদিন ১৭ জন শিক্ষার্থী ও স্কুলকর্মচারীর প্রাণ যায়।

গত বছর হামলার ঘটনার সময় ১৯ বছর বয়সী সিডনি আয়েলো নামের ওই ছাত্রী হামলার শিকার হওয়া মারজরি স্টোনম্যান স্কুলে পড়তেন। সেখানে আহতদের মধ্যে তাঁর বন্ধু মিডো পোলকও রয়েছে।

আয়েলোর আত্মহত্যার প্রতিক্রিয়ায় পোলক টুইটারে বলেছে, উজ্জ্বল ভবিষ্যৎ ফেলে রেখে আমাদের মাঝ থেকে চলে গেল সে। এটা অত্যন্ত বেদনাদায়ক যে তার মতো তরুণীকে এখন আমাদের পার্কল্যান্ডে সমাহিত করতে হবে।

স্থানীয় চিকিৎসকের কার্যালয় এনবিসিকে জানায়, আয়েলো মাথায় গুলির আঘাতের পর মারা গেছেন।

ওই ছাত্রীর মা সিবিএসকে জানান, তাঁর মেয়ে গুলিবর্ষণের ঘটনার দিন স্কুলে ছিল। তবে ঘটনা যে ভবনে ঘটে সেটিতে ছিল না সে। তবে সে আক্রান্তদের দুর্দশা কাছ থেকে দেখেছে এবং এ কারণে তাঁর দুশ্চিন্তাগ্রস্ততা পরীক্ষা-নিরীক্ষা করা হয়।

মৃত্যুর আগে সিডনি আয়েলো ক্লাসে উপস্থিত হওয়া নিয়ে দ্বিধায় ভুগতেন এবং মনমরা হয়ে থাকতেন। তবে আত্মহত্যার আগে তিনি কখনো এসব নিয়ে সহযোগিতা চাননি।

আয়েলোর আত্মহত্যার পর যুক্তরাষ্ট্রের গণমাধ্যমগুলোতে আবারো দেশটির আগ্নেয়াস্ত্র নিয়ন্ত্রণ নীতি নিয়ে আলোচনা উঠেছে।

এছাড়া সিডনি আয়েলোর স্মরণযজ্ঞের আয়োজনের জন্য সাধারণ মানুষের কাছ থেকে তহবিল সংগ্রহের ঘোষণা দেওয়া হয়েছে। সেখানে এরই মধ্যে ৬৪ হাজার ডলারের বেশি অর্থ উঠেছে।

Advertisement