Beta

পাপুয়া নিউ গিনিতে দাঙ্গায় নারী ও শিশুসহ ১৫ জন নিহত

১০ জুলাই ২০১৯, ১৭:৫৮

অনলাইন ডেস্ক

প্রশান্ত মহাসাগরের দ্বীপরাষ্ট্র পাপুয়া নিউ গিনির পার্বত্য অঞ্চল হেলা প্রদেশে প্রতিদ্বন্দ্বী উপজাতি গোষ্ঠীর মধ্যে ব্যাপক সংঘর্ষ ঘটেছে। এ ঘটনায় অন্তত ১৫ জন নিহত হয়েছেন। যাদের মধ্যে গর্ভবতী দুই নারী ও বেশ কয়েকটি শিশু রয়েছে। তা ছাড়া অনেক লোকের আহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে।

ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম গার্ডিয়ানের খবরে বলা হয়, আজ বুধবার সকালে হেলা প্রদেশের কারিদা নামক গ্রামে এই হত্যাযজ্ঞ সংঘটিত হয়েছে। এই গ্রামটিতে মোট ৮০০ লোকের বসবাস ছিল।

কারিদার সাব-হেলথ সেন্টারের প্রধান ফিলিপ পিমুয়া হামলার সময় ওই গ্রামেই ছিলেন। তিনি গার্ডিয়ানকে বলেন, ভোরে ঘরের ভিতর ঢুকে খুঁজে খুঁজে মানুষকে হত্যা করে হামলাকারীরা। নিহতদের মধ্যে আটজন শিশু ও আটজন নারী। আর নারীদের মধ্যে দুজন ছিল গর্ভবতী।

পিমুয়া বলেন, সকালে ঘুম থেকে উঠে রান্নাঘরে যাই। এ সময় গুলির শব্দ কানে আসে। দেখি কয়েকটি ঘর জ্বলছে। বুঝে যাই শত্রুরা গ্রামে ঢুকেছে। নিজেকে বাঁচাতে জঙ্গলে আশ্রয় নেই। ৯-১০টার দিকে ফিরে এসে দেখি লাশ পড়ে রয়েছে এবং ঘরবাড়ি জ্বলছে।

এদিকে, দেশটির প্রধানমন্ত্রী জেমস ম্যারাপে এক বিবৃতিতে নিষ্ঠুর এ হত্যাযজ্ঞের জন্য নিন্দা জানিয়েছেন। তিনি বলেন, 'এটি আমার জীবনের সবচেয়ে দুঃখজনক একটি দিন। কেননা আমার নির্বাচনি এলাকা মুনিমা ও কারিদা গ্রামের অনেক নিষ্পাপ শিশু ও মাকে অযথাই প্রাণ দিতে হলো।’

প্রধানমন্ত্রী জেমস ম্যারাপে আরো বলেন, 'এবার সন্ত্রাসীদের সময় শেষ, ঘটনায় জড়িতদের বিরুদ্ধে প্রশাসনকে যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহণের আহ্বান জানাচ্ছি।'

Advertisement