Beta

যৌন নির্যাতনের অভিযোগে পুলিশকে দুই নারীর মারধর (ভিডিওসহ)

১৫ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ১৮:৪৯

অনলাইন ডেস্ক

তল্লাশির নামে বাড়িতে ঢুকে এক কিশোরীকে যৌন নির্যাতনের অভিযোগে দুই নারীর হাতে মার খেলেন মধ্যপ্রদেশ পুলিশের আয়কর বিভাগের এক কর্মকর্তা। এ সময় পুলিশকে ওই দুই নারীর মারধরের দৃশ্য মোবাইল ক্যামেরায় ধারণ করেন স্থানীয় কিছু ব্যক্তি।

পরে তাঁরা তা ছড়িয়ে দেন সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে। ওই ভিডিও ভাইরাল হয়ে এখন সবার হাতে হাতে।

সংবাদমাধ্যম এনডিটিভি জানায়, ভুপালের মহেশ্বরে একটি বাড়ি ঘেরাও করে তল্লাশিকালে এক কিশোরীকে যৌন নির্যাতন করেছেন বলে গত শুক্রবার অভিযোগ আনা হয় ওই কর্মকর্তার বিরুদ্ধে। এরপরই তার ওপর হামলে পড়েন স্থানীয়রা ও ওই দুই নারী।

ওই বাড়িতে অবৈধভাবে মদ তৈরি করে তা বিক্রি করা হয়। এমন অভিযোগে পুলিশ অভিযান চালায়। এ সময় বাড়ির বাসিন্দাদের সঙ্গে বাক-বিতণ্ডায় লিপ্ত দেখা যায় পুলিশকে। তখন আকস্মিকভাবে এক নারী অভিযোগ করেন সাব ইন্সপেক্টর মোহনলাল ভায়াল তাঁর মেয়েকে যৌন নির্যাতন করেছেন।

এ অভিযোগ করেই তিনি ওই সাব ইন্সপেক্টরকে মারতে শুরু করেন। তার সঙ্গে যোগ দেয় অন্যরাও। পুলিশ কর্মকর্তাকে চড়থাপ্পর মারতে মারতে তারা বাড়ির প্রধান দরজা বন্ধ করে দেয়, যাতে তিনি পালাতে না পারেন।

ওই নারী পুলিশ কর্মকর্তার কলার ধরে ফেলেন এবং তাঁকে টেনে হিঁচড়ে রাস্তার ওপর নিয়ে যান। এ সময় ওই নারীকে শান্ত করার চেষ্টা করতে দেখা যায় পুলিশ কর্মকর্তাকে। আর তাঁর সঙ্গে অন্যরা যোগ দেন।

ঘটনার এক পর্যায়ে অন্য এক নারী একটি লাঠি দিয়ে আঘাত করতে থাকেন ওই পুলিশ কর্মকর্তাকে। এ সময় উত্তেজিত জনতা পুলিশ কর্মকর্তার বিরুদ্ধে অশ্লীল বাক্য বর্ষণ করতে থাকে। এ ঘটনায় একটি মামলা করা হয়েছে।

Advertisement