Beta

অ্যাকর্ডের নতুন শর্ত পোশাকশিল্পের ক্ষতি করছে : রুবানা হক

০৩ আগস্ট ২০১৯, ২১:৩৭ | আপডেট: ০৩ আগস্ট ২০১৯, ২২:৪২

নিজস্ব প্রতিবেদক
বিজিএমইএর সভাপতি রুবানা হক আজ শনিবার রাজধানীর একটি হোটেলে ‘পোশাক শিল্পে ফায়ার সেফটি ইস্যু’ শীর্ষক কর্মশালা শেষে ব্রিফিংয়ে কথা বলেন। ছবি : এনটিভি

তৈরি পোশাক প্রস্তুত ও রপ্তানিকারদের সংগঠন বিজিএমইএর সভাপতি রুবানা হক বলেছেন, ইউরোপীয় ক্রেতাদের জোট অ্যাকর্ডের জুড়ে দেওয়া নতুন নতুন শর্তের কারণে বিপদে আছে দেশের তৈরি পোশাকশিল্প। জোটটির কারখানাগুলোর নকশা, ভবন নিরাপত্তা, অগ্নি-নিরাপত্তার পরীক্ষায় ফেল দেখানোসহ নানা প্রতিকূলতার মধ্যেও শিল্পটি পিছিয়ে নেই বলেও জানান তিনি।

আজ শনিবার রাজধানীর একটি হোটেলে ‘পোশাক শিল্পে ফায়ার সেফটি ইস্যু’ শীর্ষক কর্মশালা শেষে ব্রিফিংয়ে কথা বলেন বিজিএমইএ সভাপতি। তিনি বলেন, অ্যাকর্ডের আরোপ করা নতুন ফায়ার সেফটি সম্পর্কিত শর্ত পোশাকশিল্পকে ক্ষতিগ্রস্ত করছে।

বিজিএমইএ প্রধান বলেন, ‘আমাদের সাথে আলোচনা না করেই অ্যাকর্ড অনেক সিদ্ধান্ত নেয়। নতুন শর্তগুলো আমাদের গতি কমিয়ে দিচ্ছে।’ তিনি অ্যাকর্ডকে এমওইউ শর্ত লঙ্ঘনেরও অভিযোগ করেন।

‘এই আরোপিত শর্তগুলো অতীতে চালু করা উচিত ছিল এবং এটি শিল্পকে ক্ষতিগ্রস্ত করছে,’ বলেন রুবানা হক। তিনি বলেন, অ্যাকর্ডের কাছ থেকে তাঁরা অনেক কিছু শিখেছেন এবং ‘ফায়ার সেফটি সম্পর্কে পরিষ্কার নির্দেশিকা’ দেওয়ার আহ্বান জানান।

রুবানা হক জানান, অ্যাকর্ড ২০১৩ সাল থেকে বিজিএমইএর সঙ্গে কাজ করে। তবে এক সঙ্গে শর্তগুলো প্রকাশ না করে একেক সময় একেকটা নতুন নতুন শর্ত জুড়ে দিচ্ছে অ্যাকর্ড।

Advertisement