Beta

হাইতিতে চরম বিক্ষোভ : পুলিশ স্টেশন, ব্যাংক, দোকানপাট লুটপাট

২৮ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ১৪:১১

অনলাইন ডেস্ক

হাইতির প্রেসিডেন্টের বিরুদ্ধে ভয়ানক প্রতিবাদমুখর হয়ে উঠেছে দেশটির জনগণ। প্রেসিডেন্ট জোভেনেল মোইসের  বিরুদ্ধে রাস্তায় নেমেছে বিক্ষুব্ধ হাইতিবাসী।

রাজধানী পোর্ট-আ-প্রিন্সের একটি পুলিশ স্টেশন, দোকানপাট ও একাধিক ব্যাংক লুটপাট ও ভাঙচুর করা হয়েছে। পুলিশও কাঁদানে গ্যাস ও গুলি ছুড়ে পাল্টা জবাব দিয়েছে।

জ্বালানি স্বল্পতা, নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যের মূল্যবৃদ্ধি এবং সরকারের দুর্নীতির বিরুদ্ধে কয়েক সপ্তাহ ধরে বিক্ষোভ করছে হাইতিবাসী।

পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে জাতিসংঘের চলমান সাধারণ অধিবেশনে ভাষণ বাতিল করেছেন দেশটির প্রেসিডেন্ট মোইসে। কিন্তু গত বুধবার জাতির উদ্দেশে ভাষণ দিয়েও সংঘাত কমাতে পারেননি আমেরিকা মহাদেশের দরিদ্র্যতম দেশগুলোর একটির প্রেসিডেন্ট। সম্প্রতি দেশটিতে চারজনের মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে।

সাম্প্রতিক সময়ের মধ্যে গতকাল শুক্রবারের বিক্ষোভ ছিল ব্যাপক ভয়াবহ। বিক্ষোভকারীরা শুক্রবার হাইতির একটি অনগ্রসর শহরের পুলিশ স্টেশনে হামলা চালিয়ে সেখানকার আসবাবপত্রসহ  স্টেশনের ধাতব ছাদ খুলে নিয়ে যায়।

বিক্ষোভকারীদের একজন স্টিভেন এডগার্ড বলেন, ‘লোকজন যে যা পারছে নিজেদের বাড়ি মেরামতে জন্য নিয়ে যাচ্ছে, কারণ বৃষ্টিতে ভিজতে ভিজতে তারা ক্লান্ত।’

বার্তা সংস্থা রয়টার্স জানিয়েছে, অপেক্ষাকৃত অভিজাত এলাকাগুলোর ব্যাংক, এটিএম মেশিন ও দোকানপাটে হামলা চালিয়েছে বিক্ষোভকারীরা। এ ছাড়া বিক্ষোভকারীরা একটি ভবনে আগুন লাগিয়ে দেয় বলে জানা গেছে। পাশাপাশি গাড়ির চাকা ও আবর্জনার স্তূপে আগুন ধরিয়ে ব্যারিকেড দেয় বিক্ষোভকারীরা।

‘সশস্ত্র সন্ত্রাসী দল ও মাদক পাচারকারীদের হাতে’ দেশকে ছেড়ে দেবেন না জানিয়ে চলতি বছরের শুরুর দিকে পদত্যাগের আহ্বান প্রত্যাখ্যান করেন মোইসে।

Advertisement