Beta

মত প্রকাশের জন্য কাউকে হত্যা করা উচিত নয় : জাতিসংঘ

০৯ অক্টোবর ২০১৯, ১৬:৫১

নিজস্ব প্রতিবেদক

বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) ছাত্র আবরার ফাহাদ হত্যাকাণ্ডের স্বাধীন ও নিরপেক্ষ তদন্ত এবং বিচার চেয়েছে জাতিসংঘ।

আজ বুধবার রাজধানীর একটি মিলনায়তনে এক আলোচনা সভায় বাংলাদেশে নিযুক্ত জাতিসংঘের আবাসিক সমন্বয়কারী মিয়া সেপ্পো নির্মম এ হত্যাকাণ্ডের নিন্দা জানিয়ে এ কথা বলেন। ডিপ্লোমেটিক করেসপনডেন্ট অ্যাসোসিয়েশেন অব বাংলাদেশ (ডিক্যাব) এ আলোচনা সভার আয়োজন করে।

বর্বরোচিত এ হত্যাকাণ্ডের বিষয়ে জাতিসংঘ আবাসিক প্রতিনিধি বলেন, ‘এ হত্যাকাণ্ডের পর আমরা মানুষের ক্ষোভ দেখেছি। এ হত্যার স্বাধীন ও নিরপেক্ষ তদন্ত এবং বিচার চায় জাতিসংঘ।’

‘এটি একটি দুঃস্বপ্ন। কোনো অভিভাবক চান না, তাঁর সন্তান বিশ্ববিদ্যালয়ে গিয়ে এভাবে মারা যাক। ক্যাম্পাস অবশ্যই নিরাপদ হওয়া উচিত।’

ক্ষমতাসীন দলের ছাত্র সংগঠন বাংলাদেশ ছাত্রলীগের নেতারা গত সোমবার আবরারকে পিটিয়ে হত্যা করে। এ ঘটনায় বুয়েট শাখা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদকসহ এ পর্যন্ত ১৪ জনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। নৃশংস এ হত্যাকাণ্ডের প্রতিবাদে বুয়েটসহ দেশের অনেক শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীরা বিক্ষোভ কর্মসূচি পালন করে চলেছে।

এদিকে জাতিসংঘের ঢাকা অফিস থেকে আবরার হত্যাকাণ্ডের নিন্দা জানিয়ে পৃথক এক বিবৃতি দেওয়া হয়েছে। বিবৃতিতে বলা হয়েছে, ‘মত প্রকাশের স্বাধীনতা একটি মৌলিক অধিকার। এর চর্চার জন্য কাউকে হয়রানি, নির্যাতন ও হত্যা করা উচিত নয়।’

এতে আরো বলা হয়, ‘কয়েক বছর ধরে বাংলাদেশে ক্যাম্পাসকেন্দ্রিক সহিংসতা বেড়েছে এবং এতে অনেকে প্রাণ হারিয়েছে। এসব ঘটনায় দায়ীদের দৃশ্যত দায়মুক্তি দেওয়া হয়েছে।’

Advertisement