Beta

যেসব দেশে কখনোই বেড়াতে যাবেন না, জেনে নিন কেন?

০৫ মে ২০১৮, ১৫:১৩

ইনডিপেনডেন্ট

দেশের বাইরে ঘুরতে যাওয়ার কথা ভাবছেন? তাহলে আপনাকে আগে থেকেই জেনে নিতে হবে কোন দেশ সম্পর্কে কি বলছেন ভ্রমণকারীরা। এসব বিষয় জানার পর কোন দেশে ঘুরতে যাবেন তা সহজ হবে।  

যুক্তরাষ্ট্রের  সামজিক খবরের ওয়েবসাইট রেডিটের সদস্যরা (রেডিটর) কয়েকটি দেশ চিহ্নিত করেছেন, যেখানে তাঁরা আর কোনো দিন যেতে চান না। এ ব্যাপারে তাঁরা কয়েকটি  কারণও বলেছেন। দেশগুলো ভ্রমণ করতে গিয়ে নানা বৈষম্যের শিকার হয়েছেন তাঁরা।

গোগো জ্যাক নামের একজন সদস্য বলেন, ‘আমি বাহামা পছন্দ করি না। জায়গা সুন্দর ছিল এ ব্যাপারে সন্দেহ নেই। তবে সেখানে গিয়ে কিছু খারাপ অভিজ্ঞতাও হয়েছে।  স্থানীয়রা বলেছে, অর্থ ছাড়া এখানে আসার কোনো মানেই হয় না। ভ্রমণকারীদের সঙ্গে কথা বলতেও তাদের আপত্তি। আর অর্থ নেওয়ার জন্য হাত পেতেই থাকে।’

অপরাধ প্রবণতা, বৈষম্য, পরিবেশ, স্থানীয়দের আচরণের মতো  বিষয়গুলো বিবেচনা করে বেশ কয়েকটি দেশের নাম দেওয়া হয়েছে। আর দেশগুলোর পাশে প্রবণতা বা বৈশিষ্ট্য। আসুন জেনে নিই…

১. ভ্রমণকারীদের প্রতি অসহযোগিতার মনোভাব : আলবেনিয়া, মালয়েশিয়া, মৌরিতানিয়া, সলোমন আইল্যান্ড, থাইল্যান্ড, তিউনিসিয়া, ভিয়েতনাম, বাহামা।

২. ভিক্ষুক : মেক্সিকো, বেলিজ

৩. বিরক্তিকর : ফিনল্যান্ড, ফ্রান্স, স্লোভাকিয়া, লুক্সেমবার্গ

৪. বিপজ্জনক :  কোয়েশিয়া, হুন্ডুরাস, সোমালিয়া, ভেনিজুয়েলা

৫. নোংরা : কিউবা, রাশিয়া, ভারত, ইন্দোনেশিয়া, ফিলিপাইন

৬. ব্যয়বহুল : ডেনমার্ক, নরওয়ে, স্লোভেনিয়া

৭. উচ্চশব্দ : ইতালি

৮. অতি দরিদ্র্য : হাইতি, জ্যামাইকা, প্যারাগুয়ে

৯. বর্ণ বৈষম্য : যুক্তরাষ্ট্র

১০. অভদ্র : চেক রিপাবলিক, গ্রিস, লেবানন, রোমানিয়া, সৌদি আরব, সুইজারল্যান্ড, তুরস্ক

১১. যৌন নিগ্রহ : মিসর, মরক্কো, সোয়াজিল্যান্ড (বর্তমানে ইসোয়াতিনি)

১২. অসৎ : কম্বোডিয়া

১৩. শৌচাগার : চীন

১৪. শীত : কানাডা

১৫. যুদ্ধ : আফগানিস্তান, ইরাক, সিরিয়া, ইয়েমেন

১৬. অদ্ভুত : জাপান, দক্ষিণ কোরিয়া

ইউটিউবে এনটিভির জনপ্রিয় সব নাটক দেখুন। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি:

Advertisement