Beta

কুমারী দেবীর আসনে মুসলিম কন্যা ফাতিমা!

০৬ অক্টোবর ২০১৯, ২৩:১৫

কলকাতা সংবাদদাতা

লাল বেনারসি, পায়ে আলতা, রক্তচন্দনের টিপ, মাথায় ফুলের মুকুট নিয়ে দুর্গাষ্টমীর দিন পূজিতা হবেন কুমারী। শুনলে মনে হবে, এ আবার নতুন কী! ঠিকই, এ পর্যন্ত তো সত্যিই কোনো অভিনবত্ব নেই।

তবে এবারের দুর্গাপূজার অষ্টমীর দিন চার বছর বয়সী যে বালিকা কুমারী রূপে পুজিতা হলেন তাঁর নাম ফতেমা। সাম্প্রদায়িক অসহিষ্ণুতার এমন সময়ে সম্প্রতির দৃষ্টান্ত হিসেবে ওই মুসলিম বালিকাকে কুমারী রূপে পূজা করা হয় কলকাতার বাগুইআটির অর্জুনপুরের দত্তবাড়িতে।

বাগুইআটির বাসিন্দা তমাল দত্ত ২০১৩ সাল থেকে নিজের বাড়িতেই পূজা করে আসছেন। পেশায় ইঞ্জিনিয়ার তমাল দত্ত দীর্ঘদিনের ইচ্ছে বাড়ির পূজায় হিন্দু নয় এমন  কোনো বালিকাকে দেবী দুর্গা হিসেবে পূজা করা হবে।

সেই ইচ্ছে পূর্ণ হলো এত দিনে। তমাল দত্তের এই ইচ্ছের কথা জানতে পেরে এগিয়ে আসেন কামারহাটির বাসিন্দা মোহাম্মদ ইব্রাহিম। তিনি তাঁর চার বছর বয়সী ভাগ্নি ফতিমাকে কুমারী পূজার জন্য বাগুইআটির দত্তবাড়িতে দিতে রাজি হন।

আগ্রার ফতেপুরে মুদি দোকানে কাজ করেন ফতিমার বাবা মোহাম্মদ তাহির। মা ও বাবার  সঙ্গে ফতিমাও থাকে সেখানে। তমাল দত্তের ইচ্ছের কথা ইব্রাহিমের মুখে শুনে সুদূর আগ্রা থেকে মেয়েকে নিয়ে কলকাতায় ছুটে আসেন তাহির ও তাঁর স্ত্রী বুশরা। অষ্টমীর সকালে বাগুইআটির দত্তবাড়িতে ধূমধাম করে পূজিত হয় কুমারী ফতিমা।

Advertisement