Beta

বালুর সঙ্গে ক্যামিকেল মিশিয়ে তৈরি হতো ডিটারজেন্ট পাউডার

১৯ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ১৭:৩৮

হবিগঞ্জ শহরতলীর ধুলিয়াখাল এলাকায় এভাবে নকল ডিটারজেন্ট পাউডার তৈরি করা হতো। ছবি : এনটিভি

হবিগঞ্জ শহরতলীর ধুলিয়াখাল এলাকায় নকল ডিটারজেন্ট পাউডারের কারখানা সিলগালা করেছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত। এ সময় বিভিন্ন ধরনের ক্যামিকেল ও বালুর মিশ্রণে তৈরি প্রায়  ৮০ কেজি নকল ডিটারজেন্ট জব্দ করা হয়।

আজ মঙ্গলবার বিকেলে সোয়া ৩টার দিকে হবিগঞ্জের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট রাশনা শারমিন মিথি ও র‌্যাব-৯ শ্রীমঙ্গল ক্যাম্পের সহকারী পুলিশ সুপার (এএসপি) আনোয়ার হোসেন শামীমের সমন্বয়ে এই অভিযান চালানো হয়।

এএসপি আনোয়ার হোসেন শামীম জানান, গোপন সূত্রে এই নকল ডিটারজেন্ট কারখানার খবর পাওয়া যায়। পরে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটের নেতৃত্বে অভিযান চালিয়ে কারখানার মালামাল জব্দ করে কারখানা সিলগালা করা হয়। এ সময় প্রতিষ্ঠানের মালিক পালিয়ে যান।

ওই কারখানায় থাকা শ্রমিক শান্তা আক্তার জানান, এখানে তিনি সপ্তাহ খানেক আগে তিন হাজার টাকা মাসিক হিসেবে কাজ শুরু করেন। নকল পণ্য তৈরির সঙ্গে কারা জড়িত তিনি জানেন না।

ওই শ্রমিক আরো জানান, তাঁরা সার্ফ এক্সেল, সুপার এক্সেল ও রিম নামের মোড়কের মাধ্যমে এসব বাজারজাত করেন। প্রতিদিন বাজারের চাহিদা অনুযায়ী এগুলো তৈরি এবং প্যাকেট করা হয়ে থাকে।

এদিকে- ধুলিয়াখাল বিসিক শিল্পনগরীতে পঁচা ডিম ব্যবহার এবং অস্বাস্থ্যকর পরিবেশে খাবার তৈরির মাধ্যমে ভোক্তা অধিকার আইন লঙ্ঘন করায় আসাদ ফুড প্রোডাক্টস নামের এক বিস্কুট কারখানাকে ২০ হাজার টাকা জরিমানা করেন ভ্রাম্যমাণ আদালত। এ সময় কারখানার মালিক পালিয়ে গেলেও ব্যবস্থাপক সুশীল চন্দ্র দাশ উপস্থিত ছিলেন। ভবিষ্যতে স্বাস্থ্যকর পরিবেশে এবং আইন মেনে বিস্কুট তৈরির নির্দেশ দেন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট।

Advertisement