Beta

নোয়াখালীতে শিয়ালের মাংস বিক্রি, একজনকে কারাদণ্ড

২৭ মে ২০১৯, ২১:৪৩

মো. মাসুদ পারভেজ, নোয়াখালী
নোয়াখালীতে শিয়ালের মাংস বিক্রির দায়ে আবদুল মতিন নামের এক ব্যক্তিকে কারাদণ্ডাদেশ দিয়েছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত। ছবি : সংগৃহীত

নোয়াখালীতে শিয়ালের মাংস বিক্রির দায়ে এক ব্যক্তিকে কারাদণ্ডাদেশ দিয়েছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত। রোববার রাতে জেলা শহর মাইজদীতে অভিযানে ওই ব্যক্তিকে কারাদণ্ডাদেশ দেওয়া হয়।

দণ্ডাদেশ পাওয়া ব্যক্তির নাম আবদুল মতিন (৪২)। তাঁর গ্রামের বাড়ি হবিগঞ্জের চুনারুঘাট উপজেলার পাছারগাঁও গ্রামে।

ভ্রাম্যমাণ আদালতের বিচারক জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট রোকনুজ্জামান খান জানান, আবদুল মতিন রোববার রাতে নোয়াখালী সুপার মার্কেটের সামনে খাঁচার মধ্যে একটি শিয়াল শাবক আটকে রেখে পাতিল ভর্তি শিয়ালের মাংস বিক্রি করছিলেন। এ সময় ভ্রাম্যমাণ আদালত হাতেনাতে তাঁকে আটক করেন। পরে তিনি আদালতের কাছে দোষ স্বীকার করলে বন্যপ্রাণী সংরক্ষণ ও নিরাপত্তা আইনের ৩৪-এর ‘খ’ ধারায় তাঁকে সাত দিনের বিনাশ্রম কারাদণ্ডাদেশ দেওয়া হয়। রায় ঘোষণার পর আবদুল মতিনকে জেলা কারাগারে পাঠিয়ে দেওয়া হয়।

এ সময় বন বিভাগের সদর রেঞ্জ কর্মকর্তা নাহিদ হাসান, ড্রাগ সপার মাসুদ হাসান ও জেলা ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তরের সহকারী পরিচালক দেবানন্দ সিনহা উপস্থিত ছিলেন। রায়ে উদ্ধারকৃত শিয়াল শাবককে বন বিভাগের মাধ্যমে বনে ছেড়ে দেওয়া এবং জব্দ করা মাংস মাটিতে পুঁতে ফেলার আদেশ দেওয়া হয়।

Advertisement