Beta

ভুয়া ম্যাজিস্ট্রেট সেজে ভ্রাম্যমাণ আদালত, আটক ৪

০৯ মে ২০১৫, ২১:১৪ | আপডেট: ০৯ মে ২০১৫, ২২:১৬

নেত্রকোনার পূর্বধলা উপজেলায় ম্যাজিস্ট্রেট ও গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি) পরিচয়ে ভুয়া ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করার সময় আজ শনিবার চারজনকে আটক করে পুলিশ। ছবি : এনটিভি

নেত্রকোনার পূর্বধলা উপজেলায় ম্যাজিস্ট্রেট ও গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি) পরিচয়ে ভুয়া ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করার সময় চারজনকে আটক করেছে পুলিশ। আজ শনিবার বিকেলে জেলার পূর্বধলা উপজেলার হিরণপুর বাজার থেকে তাঁদের আটক করা হয়। এ সময় তাঁদের কাছ থেকে একটি প্রাইভেটকার, বাংলাদেশ কনজুমার রাইট সোসাইটির দুটি পরিচয়পত্র ও ৩০০ টাকা জব্দ করা হয়।

আটক ম্যাজিস্ট্রেট পরিচয়দানকারী সিরাজুল ইসলামের বাড়ি সাতক্ষীরার কলারোয়া উপজেলায়। গোয়েন্দা পুলিশ পরিচয়দানকারী দুজন হচ্ছেন বরিশালের আমানতগঞ্জের খন্দকার খালিদ ও যশোরের ঝিকরগাছা উপজেলার ফজলুর রহমান। তাঁদের বহনকারী গাড়ির চালক গাজীপুরের শ্রীপুর উপজেলার ডোয়াইর গ্রামের নজরুল ইসলাম।

শ্যামগঞ্জ পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের দায়িত্বপ্রাপ্ত উপপরিদর্শক (এসআই) আল আমীন জানান, আজ শনিবার বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে হিরণপুর বাজারে সাইদুর রহমানের ওষুধের দোকান ও মুখলেছুর রহমানের ফলের দোকানে গিয়ে এই প্রতারকরা ম্যাজিস্ট্রেট ও ডিবি পুলিশের পরিচয় দিয়ে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করেন। তাঁরা দুটি দোকানে ভেজাল পণ্য রয়েছে দাবি করে ২০ হাজার টাকা করে জরিমানা করেন। স্থানীয় লোকজনের কাছে বিষয়টি সন্দেহ হলে পুলিশে খবর দেয়। পরে ঘটনাস্থলে গিয়ে তাদের আটক করা হয়। এ ঘটনায় পূর্বধলা থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।

Advertisement