Beta

দ্বিতীয় ম্যাচেও ঢাকার দুর্দান্ত জয়

০৮ জানুয়ারি ২০১৯, ১৫:৫৫ | আপডেট: ০৮ জানুয়ারি ২০১৯, ১৬:১৭

স্পোর্টস ডেস্ক

লক্ষ্যটা বেশ বড়ই, ১৯৩ রান। এই রান তাড়া করতে নেমে শুরুতেই বিপর্যয়ে পড়ে খুলনা টাইটানস। ঢাকা ডায়নামাইটসের নিয়ন্ত্রিত বোলিংয়ের সামনে নিয়মিত বিরতিতে উইকেট হারাতে থাকে তারা। এই বিপর্যয়ে হাল ধরতে পারেনি কেউই। দলীয় ৮৭ রানে ইনিংস গুটিয়ে নেয় মাহমুদউল্লাহর দল। স্বাভাবিক কারণে ১০৫ রানের বিশাল ব্যবধানে হেরেছে তারা।

আজ মঙ্গলবার মিরপুর শেরেবাংলা স্টেডিয়ামে টানা দ্বিতীয় জয় তুলে নিয়েছে ঢাকা। তাই দুই ম্যাচ থেকে ৪ পয়েন্ট ঝুলিতে পুরেছে তারা। আর খুলনা টানা দুই ম্যাচ হেরেছে।

সাকিব আল হাসান ও সুনীল নারিনের দুর্দান্ত বোলিংয়েই এই বড় জয় পেয়েছে ঢাকা। সাকিব ১৮ রান খরচায় তিন উইকেট পান এবং নারিন ২০ রান দিয়ে দুই উইকেট পান।

খুলনার হয়ে একমাত্র জুনায়েদ সিদ্দিকী ছাড়া কেউই পারেননি ভালো করতে তিনি। তিনি ১৬ বলে ৩১ রান করেন।  অন্যরা ছিলেন আসা-যাওয়ায়।

এর আগে প্রথমে ব্যাট করতে নেমে ঢাকা ১৯২ রান করে। ঢাকার দুই ওপেনার হজরতউল্লাহ জাজাই ও সুনীল নারিন দলকে ভালো সূচনা এনে দেন। নারিন ১৪ বলে ১৯ রান করে সাজঘরে ফিরে গেলেও জাজাই দারুণ একটি ইনিংস খেলেন। করেন ৩৬ বলে ৫৭ রান। রনি তালুকদার করেন ২৮ রান।

শেষ দিকে কিয়েরন পোলার্ড ও আন্দ্রে রাসেল দুটি ঝড়ো ইনিংস খেলে দলের সংগ্রহটাকে বড় করে দেন। পোলার্ড ১৬ বলে ২৭ রান এবং রাসেল ২২ বলে ২৫ রান করেন।

খুলনার বোলার পল স্টার্লিং ও ডেভিড উইসি দুটি করে উইকেট নিয়ে ঢাকার বড় সংগ্রহের পথে খুব একটা বাধা হতে পারেননি।

এদিকে টানা দুই ম্যাচে টসে হেরে ব্যাটিংয়ে নামে ঢাকা। আগের ম্যাচেও রাজশাহী কিংসের বিপক্ষে প্রথমে ব্যাটিংয়ে নেমে বড় স্কোর গড়েছিল। সে ম্যাচে তারা করেছিল ১৮৯ রান। সে ধারাবাহিকতায় বড় ব্যবধানেও জিতেছিল তারা।

অবশ্য আগের ম্যাচে রংপুর রাইডার্সের কাছে হেরেছিল খুলনা টাইটানস। রংপুরের করা ১৬৯ রানের জবাবে খুলনার ইনিংস থেমে যায় ১৬১ রানে।

Advertisement